ব্রেকিং নিউজ
Home » জাতীয় » ধর্মের সঙ্গে বৈশাখকে না মেলানোর আহ্বান পরিকল্পনামন্ত্রীর
ধর্মের সঙ্গে বৈশাখকে না মেলানোর আহ্বান পরিকল্পনামন্ত্রীর
--ফাইল ছবি

ধর্মের সঙ্গে বৈশাখকে না মেলানোর আহ্বান পরিকল্পনামন্ত্রীর

অনলাইন ডেস্ক:

ধর্মের সঙ্গে বৈশাখকে না মেলানোর আহ্বান জানিয়েছেন পরিকল্পনামন্ত্রী এম এ মান্নান। তিনি বলেন, অসাম্প্রদায়িক বাংলাদেশ স্বাভাবিক বিষয়, এটা বলে বলে প্রচার করার কিছু নেই। বৈশাখে সবাই আনন্দ করেছে। আমরা বলি ধর্ম যার যার উৎসব সবার।

বৈশাখ তার মধ্যে উৎকৃষ্ট উদাহরণ।

আজ বৃহস্পতিবার (১৪ এপ্রিল) পরিকল্পনা মন্ত্রণালয়ে অবস্থিত শহীদ মিনার চত্বরে পহেলা বৈশাখ উদযাপন অনুষ্ঠানে তিনি এসব কথা বলেন। ।

পরিকল্পনামন্ত্রী বলেন, বাংলাদেশ অসাম্প্রদায়িক দেশ- এটা স্বাভাবিক ব্যাপার। এটা নিয়ে বারবার বলে প্রচার করার কিছু নেই। সবাই আমরা বাঙালি, ধর্ম যার যার উৎসব সবার, বৈশাখ তার একটা বড় উদাহরণ। কোনো মৌলবাদী এটা বন্ধ করলে তারা বাধাপ্রাপ্ত হবে। আমার বিশ্বাস, এই শক্তি নিশ্চিহ্ন হবে। ’

বৈশাখ প্রসঙ্গে এম এ মান্নান বলেন, আমার ধারণা কেউ বৈশাখের বিরুদ্ধে নেই। মৌলবাদী মহল যদি এটা নিয়ে নেতিবাচক কিছু করতে চায় তবে তারা চূড়ান্তভাবে নিশ্চিহ্ন হবে। ’

পরিকল্পনা কমিশনে শহীদ মিনার চত্বর ও সাংস্কৃতিক কেন্দ্র প্রসঙ্গে মন্ত্রী বলেন, এখানে সব ধর্মের মানুষ অনুষ্ঠান পালন করবে। ধর্মীয় অনুষ্ঠান করতে চাইলে করবে। নামই দেওয়া হয়েছে শহীদ মিনার ও সাংস্কৃতিক কেন্দ্র। কেউ দোয়া মাহফিল করতে চাইলে সমস্যা নেই। পরিকল্পনা কমিশন চত্বর চমৎকার পরিবেশ। গাছপালা আছে এখানে। এই জায়গা খালি পড়ে ছিল। আমরা বেশি টাকা ব্যয় করিনি। সামান্য টাকা ব্যয় করে এটা নির্মাণ করেছি। এখানে বসার ছোফা-চেয়ার নেই। সবাই নিজের মতো করে বসতে পারবে। এটার বিরুদ্ধে কেউ নেই। মৌলবাদী মহল বিরুদ্ধে থাকলে, অন্যায় আচরণ করলে তারা নিঃশেষ হবে। ’

তিনি আরো বলেন, বাংলা নববর্ষ অসাম্প্রদায়িক বিষয়। কেউ নানা স্বার্থে অনেককে ভিন্ন পথে নিয়ে যায়। আমরা সবাই বাঙালি এটা নিয়ে একমত।

মন্ত্রী আরো বলেন, পরিকল্পনা কমিশনে ধর্মীয় অনুষ্ঠান করলে বাধা দেব না। তবে যেন অন্যের কাজকে ঘৃণা না করি। অশ্লীল, অন্যায় না করি।   দুর্নীতিপরায়ণ কিছু করবে না এটাই আমাদের প্রত্যয়।

নববর্ষের অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন পরিকল্পনা প্রতিমন্ত্রী ড. শামসুল আলম, পরিসংখ্যান ও তথ্য ব্যবস্থাপনা বিভাগের সচিব ড. শাহনাজ আরেফিন, পরিকল্পনা বিভাগের সচিব প্রদীপ রঞ্জন চক্রবর্তী, পরিকল্পনা কমিশনের সদস্য মোসাম্মৎ নাসিমা বেগম, বাংলাদেশ পরিসংখ্যান ব্যুরোর (বিবিএস) মহাপরিচালক মোহাম্মদ তাজুল ইসলামসহ অন্যরা।

সূত্র: কালের কন্ঠ অনলাইন।

About Syed Enamul Huq

Leave a Reply

WP2Social Auto Publish Powered By : XYZScripts.com