ব্রেকিং নিউজ
Home » জাতীয় » বিজয় শোভাযাত্রা সফল করতে সবার সহযোগিতা চান নানক
বিজয় শোভাযাত্রা সফল করতে সবার সহযোগিতা চান নানক
--ফাইল ছবি

বিজয় শোভাযাত্রা সফল করতে সবার সহযোগিতা চান নানক

অনলাইন ডেস্ক:

বিজয় শোভাযাত্রা সফল করতে সংশ্লিষ্ট সবার সহযোগিতা চেয়েছেন বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের সভাপতিমণ্ডলীর সদস্য অ্যাডভোকেট জাহাঙ্গীর কবির নানক। ঐতিহাসিক বিজয় শোভাযাত্রার কারণে জনগণের চলাচলে সাময়িক অসুবিধার জন্য দুঃখ প্রকাশ করে ঢাকার জনগণকে তাতে সম্পৃক্ত হওয়ার উদাত্ত আহ্বান জানান তিনি।

আজ শুক্রবার (১৭ ডিসেম্বর) সকালে স্বাধীনতার সুবর্ণ জয়ন্তী ও মুজিববর্ষের বিজয় দিবস উপলক্ষে ‘বিজয় শোভাযাত্রা’ বাস্তবায়ন ও সফল করতে এক জরুরি প্রস্তুতিসভা শেষে তিনি এ কথা বলেন। সকাল ১১টায় বাংলাদশ আওয়ামী লীগের সভাপতি শেখ হাসিনার ধানমণ্ডির রাজনৈতিক কার্যালয়ে আওয়ামী লীগের ঘোষিত ‘বিজয় শোভাযাত্রা’ কর্মসূচি বাস্তবায়ন ও সফল করার লক্ষ্যে এই জরুরি প্রস্তুতিসভা অনুষ্ঠিত হয়।

উল্লেখ্য, বাংলাদশ আওয়ামী লীগ স্বাধীনতার সুবর্ণ জয়ন্তী ও মুজিববর্ষের বিজয় দিবস উপলক্ষে ১৮ ডিসেম্বর শনিবার দুপুর ২টায় রাজধানীতে ‘বিজয় শোভাযাত্রা’ কর্মসূচির আয়াজন করছে। বর্ণাঢ্য এই শোভাযাত্রাটি রাজধানীর সোহরাওয়ার্দী উদ্যান সংলগ্ন ইঞ্জিনিয়ার্স ইনস্টিটিউশন প্রাঙ্গণ থেকে শুরু হয়ে শাহবাগ, এলিফ্যান্ট রোড, সায়েন্স ল্যাবরেটরি ও মিরপুর রোড হয়ে জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের স্মৃতিবিজড়িত বাসভবন ধানমণ্ডি বত্রিশ নাম্বার ঐতিহাসিক ‘বঙ্গবন্ধু ভবন’ প্রাঙ্গণে এসে শেষ হবে। উক্ত কর্মসূচিতে রাজধানী ঢাকার বিভিন্ন প্রান্ত থেকে আওয়ামী লীগ ও সহযোগী সংগঠনগুলোর সর্বস্তরের নেতাকর্মীরা অংশ নেবে।

সভার সিদ্ধান্তের বিষয়ে জাহাঙ্গীর কবির নানক বলেন, সমগ্র দেশবাসী বাঙালি জাতি বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের জন্মশতবার্ষিকী ও স্বাধীনতার সুবর্ণ জয়ন্তী পালন করছে। এর মধ্যে গতকাল ও আজকে বিভিন্ন অনুষ্ঠান পালিত হচ্ছে জাতীয় বাস্তবায়ন কমিটির উদ্যোগে। আগামীকাল বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের উদ্যোগে বিজয় শোভাযাত্রা অনুষ্ঠিত হবে।

বিজয়ের ৫০ বছর উদযাপন করতে ঐতিহাসিক এই বিজয় শোভাযাত্রা ঐতিহাসিক সোহরাওয়ার্দী উদ্যান থেকে শুরু হবে। সোহরাওয়ার্দী উদ্যানে জাতির পিতা স্বাধীনতার দিকনির্দেশনা দিয়েছিলেন। সেই ঐতিহাসিক সোহরাওয়ার্দী উদ্যান থেকে ঐতিহাসিক ধানমণ্ডির ৩২ নম্বর বঙ্গবন্ধু ভবনে এসে শেষ হবে। এই বিজয় শোভাযাত্রা সফল করতে আজকে আমরা আকস্মিকভাবে বসেছিলাম এবং সেখানে মহানগর আওয়ামী লীগ উত্তর-দক্ষিণসহ বিভিন্ন সহযোগী সংগঠনের নেতারা উপস্থিত ছিলেন। যারা উপস্থিত হতে পারেননি তাদেরকে অবহিত করা হয়েছে।

সভায় আরো সিদ্ধান্ত হয়, রাজধানী ঢাকার উত্তর প্রান্ত থেকে কর্মসূচিতে যোগদান করতে আসা দলীয় নেতাকর্মীদেরকে হাতিরঝিল, মগবাজার ও মৎস্য ভবনের সড়ক এবং ঢাকার দক্ষিণ প্রান্ত থেকে আসা দলীয় নেতাকর্মীদেরকে গুলিস্তান, হাইকোর্ট মাজার, ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় এলাকার সড়ক ব্যবহার করবে। এসব সড়কে সর্বসাধারণের চলাচলের সুবিধার বিষয়টি বিবেচনায় রেখে কর্মসূচিতে অংশগ্রহণের নির্দেশ দেওয়া হয়েছে।

শোভাযাত্রা বর্ণাঢ্য ও জাঁকজমকপূর্ণভাবে আয়োজন এবং বাস্তবায়ন করতে সংশ্লিষ্ট সবার প্রতি সাংগঠনিক নির্দেশনা প্রদান করা হয়েছে। একইভাবে সারা দেশে একযোগে ‘বিজয় শোভাযাত্রা’ কর্মসূচির আয়োজন করা হয়েছে। এই কর্মসূচি সফলভাব বাস্তবায়নের জন্য বাংলাদশ আওয়ামী লীগ ও সহযাগী সংগঠনগুলোর সর্বস্তরের নেতাকর্মীদের প্রতিও আহ্বান জানানো হয়েছে।

বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের সভাপতিমণ্ডলীর সদস্য জাহাঙ্গীর কবির নানকের সভাপতিত্বে উপস্থিত  ছিলেন সভাপতিমণ্ডলীর সদস্য আব্দুর রহমান, যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক মাহবুব-উল আলম হানিফ, ডা. দীপু মনি, ড. হাছান মাহমুদ এমপি, আ ফ ম বাহাউদ্দিন নাছিম, সাংগঠনিক সম্পাদক আহমদ হাসান, এস এম কামাল হোসেন, মির্জা আজম, শফিউল আলম চৌধুরী নাদেল, দপ্তর সম্পাদক ব্যারিস্টার বিপ্লব বড়ুয়া, উপ-দপ্তর সম্পাদক সায়ম খান, উপ-প্রচার সম্পাদক আমিনুল ইসলাম। এ ছাড়া উপস্থিত ছিলেন ঢাকা মহানগর উত্তর আওয়ামী লীগের সভাপতি শেখ বজলুর রহমান, যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক হাবিব হাসান এমপি, ঢাকা মহানগর দক্ষিণ আওয়ামী লীগের সভাপতি বীর মুক্তিযাদ্ধা আবু আহমেদ মান্নাফি, সাধারণ সম্পাদক হুমায়ুন কবির ও স্বেচ্ছাসেবক লীগের সভাপতি নির্মল রঞ্জন গুহ ও  সাধারণ সম্পাদক আফজালুর রহমান বাবু।

About Syed Enamul Huq

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*

WP2Social Auto Publish Powered By : XYZScripts.com