Monday , 21 September 2020
Home » জাতীয় » অগ্রণী ব্যাংকের টাকা আত্মসাতের চেষ্টা ব্যাংকিং খাতে সুশাসন প্রতিষ্ঠা জরুরি

অগ্রণী ব্যাংকের টাকা আত্মসাতের চেষ্টা ব্যাংকিং খাতে সুশাসন প্রতিষ্ঠা জরুরি

অগ্রণী ব্যাংকের পুরানা পল্টন করপোরেট শাখা থেকে ৩০০ কোটি টাকা আত্মসাতের চেষ্টা ভেস্তে গেছে। কর্তৃপক্ষের সময়মতো হস্তক্ষেপে আত্মসাৎ চেষ্টা ব্যর্থ হয়। তবে ট্রাস্ট ব্যাংকের ইস্যুকৃত ২৫ কোটি টাকার ভুয়া স্থানীয় এলসির বিপরীতে একই শাখা থেকে ২০ কোটি টাকা আত্মসাৎ করেছে। অধস্তন কর্মকর্তাদের প্রভাবিত করে শাখায় ভুয়া হিসাব খোলা হয়। সঠিকভাবে এলসি অ্যাডভাইস করা হয়নি। এলসির অ্যাডভাইস প্রকৃত গ্রাহকের ঠিকানায় পাঠানো হয়নি। রপ্তানি ডকুমেন্ট যাচাই না করে ইস্যুকারী ব্যাংককে টাকা কালেকশনে পাঠানো হয়েছে। এ ঘটনায় সংশ্লিষ্ট ব্যাংকের শাখাপ্রধানের সংশ্লিষ্টতার প্রমাণ থাকায় তাকে সাময়িক বরখাস্ত ও পাশাপাশি তার বিরুদ্ধে ফৌজদারি মামলা করা হয়। উদ্বেগের বিষয় হলো, ব্যাংকগুলোর খেলাপি ঋণ, অব্যবস্থাপনা, অনিয়ম-জালিয়াতি ও অর্থ আত্মসাতের ঘটনা না কমে বরং বাড়ছে। এটি কোনো মতেই গ্রহণযোগ্য নয়। অন্যায়ের সঙ্গে যুক্ত যে কারো আইন অনুযায়ী শাস্তি হওয়া উচিত। তা না হলে ব্যাংকিং খাতের ওপর থেকে মানুষের আস্থা চলে যাবে। প্রচলিত ব্যাংকিংব্যবস্থা যদি দেশের মানুুষের আস্থা ও বিশ্বাস অর্জনে ব্যর্থ হয়, তবে তার ফল কখনই ভালো হবে না। এ ধরনের জালিয়াতির সঙ্গে খোদ ব্যাংকের কর্মকর্তারা জড়িত থাকছেন। তারা অনৈতিক সুবিধা গ্রহণের মাধ্যমে অযোগ্য প্রতিষ্ঠানকে ঋণ পাওয়ার বন্দোবস্ত করে দিচ্ছেন, যা পুরো ব্যাংকিংব্যবস্থাকে যেমন নড়বড় করে দিচ্ছে, তেমনি আর্থিক খাতের অপূরণীয় ক্ষতি করছে। একের পর এক অনিয়ম ব্যাংকিং খাতের উন্নয়নকে চরমভাবে বাধাগ্রস্ত করছে। আর অবৈধ পথে ঋণ মেলায় দুর্নীতিবাজরা উৎসাহিত হচ্ছে। তারা ব্যাংকের দুর্নীতিবাজ কর্মকর্তাদের সঙ্গে মিলে অর্থ লুট করছে। অন্যদিকে এভাবে ঋণ প্রদান করায় ঋণখেলাপির সংখ্যাও বাড়ছে। এ ধরনের অপরাধ চলতে থাকার অন্যতম কারণ বিচারহীনতার সংস্কৃতি। বিভিন্ন সময়ে অভিযোগ উঠলেও এখনো দায়ীদের বিরুদ্ধে দৃষ্টান্তমূলক শাস্তির নজির নেই বললেই চলে। অর্থ লোপাটের এমন সংস্কৃতি ব্যাংকের আর্থিক ভিত্তি যেমন দুর্বল করছে, তেমনি ঝুঁকি বাড়ছে আমানতকারীদের। ব্যাংকগুলোয় লুটপাট বন্ধে সরকার দ্রুত প্রয়োজনীয় পদক্ষেপ নেবে এটিই আমাদের প্রত্যাশা।

About Expert

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*