রায়পুরে অস্ত্র-গুলি ইয়াবাসহ ডাকাত হাসান গ্রেফতার

আখতার হোসাইন খান
বিশেষ প্রতিনিধি 
 লক্ষীপুর জেলার রায়পুর উপজেলায় ১টি পাইপগান, ১টি দেশীয় তৈরী এলজি, ৪টি কার্তুজ, ৮পিস ককটেল ও ২২পিস ইয়াবাসহ মাদক ব্যবসায়ী মোঃ হাসান (৪০) ওরফে ডাকাত হাসানকে আটক করেছে পুলিশ। হাসান উপজেলার ৯নং দক্ষিণ উদমারা ইউনিয়নের উদমারা গ্রামের নোয়াবাড়ীর মৃত আলী আহম্মদের ছেলে।  হায়দরগঞ্জ পুলিশ ফাঁড়ি থানার পরিদর্শক মোঃ বেলায়েত হোসেনের নেতৃত্বে অভিযান চালিয়ে অস্ত্র-গুলি ও ইয়াবাসহ ঐ মাদক ব্যবসায়ীকে গ্রেফতার করা হয়।

পুলিশ সূত্রে জানা যায়, (বুধবার) সকালে গোপন সংবাদের ভিত্তিতে এসআই মুজিবুর রহমান ২২ পিস ইয়াবাসহ হাসানকে গ্রেফতার করেন। জিজ্ঞাসাবাদের এক পর্যায়ে হাসানের কাছে অস্ত্র আছে বলে পুলিশকে জানায়। পরে হায়দরগঞ্জ পুলিশ ফাঁড়ি থানার পরিদর্শক মোঃ বেলায়েত হোসেনের নেতৃত্বে একদল পুলিশ অভিযান পরিচালনা করেন। হাসানের স্বীকারোক্তি অনুযায়ী এসময় পুলিশ উদমারা গ্রামের একটি পরিত্যাক্ত এলাকার বালুর বস্তার ভেতর থেকে ১টি পাইপগান, ১টি এলজি, ৪পিস কার্তুজ, ৮পিস ককটেল উদ্ধার করেন। পরে উত্তর চর আবাবিল ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান বীর মুক্তিযোদ্ধা মোঃ শহীদ উল্যাহ বি.এস.সি, দক্ষিণ চর আবাবিল ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান মোঃ নাছির উদ্দিন বেপারী ঘটনাস্থলে উপস্থিত হন। পরে হাসানের বিরুদ্ধে পুলিশ বাদী হয়ে রায়পুর থানায় মাদক ও অস্ত্র আইনে মামলা দায়ের করেন। হাসানের বিরুদ্ধে রায়পুর থানায় চুরি ও মাদকের একাধিক মামলা রয়েছে বলে জানা যায়।

রায়পুর থানার অফিসার ইনচার্জ মোঃ তোতা মিয়া বলেন, হাসান নাম করা একজন অপরাধী। চুরি, ডাকাতি, মাদকসহ বিভিন্ন অপরাধের সঙ্গে সে জড়িত। পুলিশের তালিকাভুক্ত একজন সন্ত্রাসী। মাদক ও অস্ত্র আইনের মামলায় তাকে কারাগারে পাঠানো হবে। মাদক ও সন্ত্রাসীদের বিরুদ্ধে পুলিশের অভিযান অব্যাহত থাকবে বলেও তিনি জানান।