Wednesday , 23 September 2020
Home » বিশ্ব সংবাদ » মার্কিন সুন্দরীকে যৌন সম্পর্কের প্রস্তাব দিয়েছিলেন ইমরান খান?

মার্কিন সুন্দরীকে যৌন সম্পর্কের প্রস্তাব দিয়েছিলেন ইমরান খান?

অনলাইন ডেস্কঃ
সাবেক স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী রেহমান মালিক তাকে রাষ্ট্রপতি ভবনে ধর্ষণ করেছিলেন বলে চাঞ্চল্যকর অভিযোগ করেছিলেন মার্কিন সাংবাদিক ও ব্লগার সিন্থিয়া ডি রিচি। এবার সামনে এলো আরো বিস্ফোরক তথ্য, আভিযোগ খোদ পাকিস্তানি প্রধানমন্ত্রী ইমরান খানের বিরুদ্ধে। মার্কিন এই সুন্দরী তরুণীকে নাকি যৌন সম্পর্কের প্রস্তাব দিয়েছিলেন ইমরান খান। এক পাক সঞ্চালক এমন দাবি করেছেন।
পাকিস্তানের জনপ্রিয় টিভি হোস্ট আলি সালিম ওরফে বেগম নওয়াজিশ আলি দাবি করেছেন, মার্কিন অ্যাডভেঞ্চারিস্ট সিন্থিয়া ডি রিচির সঙ্গে তার বেশ ঘনিষ্ঠ সম্পর্ক ছিল। সিন্থিয়া নিজেই তাকে বলেছিলেন যে, তাকে একসময় সেক্সের প্রস্তাব দিয়েছিলেন ইমরান খান।
এর আগে শুক্রবারই (৫ জুন ) ফেসবুকে লাইভে সিন্থিয়া ডি রিচি একের পর এক বিস্ফোরক অভিযোগ করেন। পাকিস্তান পিপলস পার্টির একাধিক নেতার নামে অভিযোগ সামনে আনেন তিনি।
বর্তমানে পাকিস্তানে বসবাসকারী ওই মার্কিন তরুণীর অভিযোগ, ২০১১ সালে তাকে প্রেসিডেন্ট ভবনে ধর্ষণ করে পাকিস্তানের প্রাক্তন স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী রেহমান মালিক। এছাড়াও তিনি আরো দুই পাকিস্তানী শীর্ষ স্থানীয় রাজনৈতিক নেতার বিরুদ্ধে অভিযোগ জানিয়েছেন। যদিও এখনো পর্যন্ত তারা এই অভিযোগ মানতে চাননি। সেই সময় পাকিস্তানে পিপিপি-র সরকার ছিল। সেখানে তাকে কেউ সাহায্য করবে না ভেবেই সেই সময় এ নিয়ে তিনি মুখ খোলেননি বলে জানিয়েছেন সিন্থিয়া।
ইসলামাবাদে প্রেসিডেন্ট হাউসে থাকাকালীন প্রাক্তন প্রধানমন্ত্রী ইউসুফ রাজা গিলানি এবং প্রাক্তন মন্ত্রী মখদুম সাহাবুদ্দিন তার গায়ে হাত তোলেন বলেও দাবি করেছেন সিন্থিয়া। সেই সময় পাকিস্তানের প্রেসিডেন্ট ছিলেন আসিফ আলি জারদারি। তার স্ত্রী তথা পাকিস্তানের প্রাক্তন প্রধানমন্ত্রী বেনজির ভুট্টোর ব্যক্তিগত জীবন নিয়েও এর আগে একাধিক মন্তব্য করেছিলেন সিন্থিয়া। প্রকাশ্যে দলীয় নেতৃত্বের বিরুদ্ধে মুখ খোলায় জারদারি পরিবার ও পিপিপি তাকে হুমকি দিচ্ছে, তার পরিবারকে হেনস্থা করছে বলেও দাবি করেন সিন্থিয়া। কিন্তু এক পাকিস্তানি নাগরিকের সঙ্গে সম্প্রতি বাগদান সম্পন্ন হয়েছে তার, হবু স্বামীই তাকে সত্যিটা সামনে তুলে আনতে উৎসাহ জুগিয়েছেন বলে জানিয়েছেন তিনি। নিরপেক্ষ তদন্ত হলে, সেই সংক্রান্ত যাবতীয় তথ্যপ্রমাণ তুলে ধরবেন বলে জানিয়েছেন তিনি।
তবে মার্কিন তরুণীকে ধর্ষণের অভিযোগ খারিজ করেছেন রেহমান মালিক।গতকাল শনিবার তার মুখপাত্র একটি বিবৃতি প্রকাশ করে বলেন, এ নিয়ে সরাসরি কোনও মন্তব্য করতে চান না রেহমান মালিক। কিন্তু সমস্ত অভিযোগ অস্বীকার করছেন তিনি। এই সমস্ত অভিযোগের কোনো সত্যতা নেই। রেহমান মালিকের ভাবমূর্তি নষ্ট করতেই এই ধরনের মিথ্যা অভিযোগ আনা হচ্ছে। একজন বিশেষ ব্যক্তি ও সংগঠনের নির্দেশ মতো কাজ করছেন ওই মার্কিন নারী। সিন্থিয়ার গায়ে হাত তোলার কথা অস্বীকার করেছেন পাকিস্তানের সাবেক প্রধানমন্ত্রী ইউসুফ রাজা গিলানিও।

About Sakal Bela

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*

error: Content is protected !!