Sunday , 27 September 2020
Home » দৈনিক সকালবেলা » বিভাগীয় সংবাদ » দেশগ্রাম » 'র‌্যাব পরিচয়ে' চাঁদাবাজির অভিযোগে দুই 'সাংবাদিক' গ্রেপ্তার

'র‌্যাব পরিচয়ে' চাঁদাবাজির অভিযোগে দুই 'সাংবাদিক' গ্রেপ্তার

অনলাইন ডেস্ক:
টাঙ্গাইলে র‌্যাব পরিচয়ে চাঁদাবাজির অভিযোগে কথিত দুই সাংবাদিককে গ্রেপ্তার করেছে র‌্যাব।গতকাল রবিবার শহরের বিভিন্ন এলাকায় অভিযান চালিয়ে তাদের গ্রেপ্তার করা হয়। গ্রেপ্তারকৃতরা হলো টাঙ্গাইল শহরের কাজিপুর এলাকার মৃত হযরত আলী সরকারের ছেলে জি বাংলার প্রতিনিধি মো. আলমগীর হোসেন ও পশ্চিম আকুরটাকুর এলাকার মো. আব্দুল মোতালেবের ছেলে টাঙ্গাইল থেকে প্রকাশিত অনলাইন নিউজ পোর্টাল টাঙ্গাইল প্রতিদিনের স্টাফ রিপোর্টার মো. তারেক রহমান। গ্রেপ্তারকৃতরা চাঁদাবাজির কথা স্বীকার করেছে বলে র‌্যাব কমান্ডার জানান।
র‌্যাব পরিচয়ে চাঁদাবাজির অভিযোগে কথিত চার সাংবাদিক ও এক স্কুলছাত্রীকে উত্ত্যক্তকারী যুবকের নাম উল্লেখ করে গত শুক্রবার রাতে টাঙ্গাইল মডেল থানায় মামলা দায়ের করেন টাঙ্গাইল সদর উপজেলার হুগড়া ইউনিয়নের চরহুগড়া গ্রামের ওই স্কুলছাত্রীর মা।
র‌্যাব ও মামলার অভিযোগ থেকে জানা যায়, টাঙ্গাইল সদর উপজেলার চরহুগড়া গ্রামের অষ্টম শ্রেণির এক ছাত্রীকে একই গ্রামের রেকাত মন্ডলের ছেলে ফারুক হোসেন প্রায়ই উত্ত্যক্ত করত। বিষয়টি মেয়ের বাবা-মা ফারুকের বাবা-মাকে জানান। তারপরও গত ৩০ মে দুপুরে এক প্রতিবেশীর মাধ্যমে ফারুক মেয়ের বাড়িতে বিয়ের প্রস্তাব পাঠায়। এ প্রস্তাব নাকচ করার পরদিন গত ১ জুন আতোয়ার, জহিরুল, আলমগীর ও সবুর ওই ছাত্রীর বাড়ি গিয়ে নিজেদের র‌্যাব ও সাংবাদিক পরিচয় দেন। তারা ফারুকের সঙ্গে মেয়েকে বিয়ে দেওয়ার জন্য চাপ দেয়। বিয়ে না দিলে মেয়ের ক্ষতি করবে বলে তার ছবি তোলে ও ভিডিও করে। একপর্যায়ে তারা ৫০ হাজার টাকা চাঁদা দাবি করে। এ সময় তাদের ১০ হাজার টাকা চাঁদা দেওয়া হয়। বাকি ৪০ হাজার টাকা বিকাশের মাধ্যমে পাঠিয়ে দেওয়ার কথা বলে তারা চলে যায়।
পরে ওই মেয়ের বাবা-মা টাঙ্গাইলের পুলিশ সুপার এবং টাঙ্গাইলে দায়িত্বরত র‌্যাবের কম্পানি কমান্ডারের কাছে বিচার চেয়ে আবেদন করেন। শুক্রবার রাতে টাঙ্গাইল মডেল থানায় ওই ছাত্রীর মা বাদি হয়ে উত্ত্যক্তকারী ফারুক এবং চাঁদা নেওয়ায় চার সাংবাদিক দৈনিক আজকের প্রভাত পত্রিকার টাঙ্গাইল প্রতিনিধি এস এম আতোয়ার রহমান, দৈনিক আমার সময় পত্রিকার প্রতিবেদক মো. আলমগীর হোসেন, দৈনিক জনতার কথা পত্রিকার প্রতিবেদক জহিরুল ইসলাম ও সাপ্তাহিক ইনতেজার পত্রিকার প্রতিবেদক সবুর মিয়ার নাম উল্লেখ করে মামলা দায়ের করেন।
ওই ঘটনার সঙ্গে জড়িত অভিযোগে আলমগীর ও তারেক রহমান নামে দুই কথিত সাংবাদিককে গ্রেপ্তার করে র‌্যাব। বাকি আসামিদের গ্রেপ্তারে বিভিন্ন স্থানে অভিযান অব্যাহত রয়েছে বলে র‌্যাব কমান্ডার ও টাঙ্গাইল মডেল থানার ওসি মীর মোশারফ হোসেন জানান।

About Sakal Bela

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*

error: Content is protected !!