Thursday , 22 April 2021
Home » প্রচ্ছদ » ধর্ষণ বিদায় করতে আইন সংশোধন করে মৃত্যুদণ্ডের বিধান নিশ্চিত করতে হবে-জিএম কাদের
ধর্ষণ বিদায় করতে আইন সংশোধন করে মৃত্যুদণ্ডের বিধান নিশ্চিত করতে হবে-জিএম কাদের
--প্রতীকী ছবি

ধর্ষণ বিদায় করতে আইন সংশোধন করে মৃত্যুদণ্ডের বিধান নিশ্চিত করতে হবে-জিএম কাদের

অনলাইন ডেস্ক:

জাতীয় পার্টি চেয়ারম্যান ও বিরোধীদলীয় উপনেতা জিএম কাদের এমপি বলেছেন, দেশ থেকে ধর্ষণ বিদায় করতে বিদ্যমান আইন সংশোধন করে মৃত্যুদণ্ডের বিধান নিশ্চিত করতে হবে। ধর্ষণের বিচার করতে বিশেষ ট্রাইব্যুন্যাল গঠন করে স্বল্প সময়ের মধ্যে বিচার করতে হবে। দ্রুততার সঙ্গে বিচারের রায় কার্যকর করলেই দেশ থেকে ধর্ষণের মতো সামাজিক ব্যধি দূর করা সম্ভব হবে। এতে সাধারণ মানুষের মাঝে আস্থা ফিরে আসবে এবং অপরাধীরা অপরাধ করতে সাহস পাবে না।

জাতীয় পার্টির চেয়ারম্যানের বনানী কার্যালয়ে গতকাল শনিবার কুষ্টিয়া জেলা জাতীয় পার্টির সাংগঠনিক সভায় তিনি এসব কথা বলেন। জাতীয় পার্টি চেয়ারম্যান বলেন, হুসেইন মুহম্মদ এরশাদ এসিড সন্ত্রাস রোধ করতে মৃত্যুদণ্ডের বিধান রেখে আইন করেছিলেন। তখন দ্রুত বিচার সম্পন্ন করে বিচারের রায় কার্যকর করায় দেশ থেকে এসিড সন্ত্রাস দূর হয়েছিল। তাই বর্তমান পরিস্থিতি থেকে উত্তোরণের জন্য ধর্ষণের সাজা মৃত্যুদণ্ড নিশ্চিত করলেই লজ্জাজনক এই পরিস্থিতি থেকে রেহাই মিলবে। তিনি বলেন, দেশ, জাতি ও মেধাবীদের স্বার্থে উচ্চ মাধ্যমিক পরীক্ষার বিষয়ে সিদ্ধান্ত সরকার আবারও বিবেচনা করতে পারে। যেখানে সব কিছুই খুলে দেয়া হয়েছে সেখানে মেধাবী শিক্ষার্থীদের জন্য গুরুত্বপূর্ণ এইচএসসি পরীক্ষা স্বাস্থ্যবিধি মেনে নেয়া যেতে পারে। জিএম কাদের বলেন, জেএসসি ও এসএসসি পরীক্ষার ফলাফল বিবেচনায় সবার জন্য এইচএসসি পরীক্ষার ফলাফল নির্ধারণ করা যেতে পারে, কিন্তু যারা পরীক্ষায় অংশ নিতে চায় তাদের জন্য এইচএসসি পরীক্ষার ব্যবস্থা করতে পারে সরকার।

জাতীয় পার্টি প্রেসিডিয়াম সদস্য এবং খুলনা বিভাগীয় জাতীয় পার্টি অতিরিক্ত মহাসচিব সাহিদুর রহমান টেপার সভাপতিত্বে সভায় জাতীয় পার্টি মহাসচিব জিয়াউদ্দিন আহমেদ বাবলু বলেন, যখন বিশ্বব্যাপী করোনা মহামারী চলছে, তখন বাংলাদেশে যোগ হয়েছে ধর্ষণের মহামারী। প্রকাশ্য দিবালোকে নারী তার সম্মান হারাচ্ছে। এটা সভ্য সমাজে মেনে নেয়া যায় না। তিনি বলেন, দেশের মানুষ পরিবর্তন চায়, দেশের মানুষ শান্তি, স্বস্তি ও নিরাপত্তা চায়। শুধু উন্নয়ন দিয়ে মানুষের শান্তি ও নিরাপত্তা নিশ্চিত করা যায় না। এ সময় আরও বক্তৃতা করেন জাতীয় পার্টির কো-চেয়ারম্যান মুজিবুল হক চুন্নু, প্রেসিডিয়াম সদস্য সুনীল শুভ রায়, ব্যারিস্টার শামীম হায়দার পাটোয়ারী, রেজাউল ইসলাম ভূইয়া, চেয়ারম্যানের উপদেষ্টা ড. নুরুল আজহার শামীম।

About Syed Enamul Huq

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*