Wednesday , 4 August 2021
ব্রেকিং নিউজ
Home » দৈনিক সকালবেলা » বিভাগীয় সংবাদ » চট্টগ্রাম বিভাগ » চুরি হওয়া শিশুটিকে মায়ের কোলে ফিরিয়ে দিলেন কলেজ শিক্ষার্থী নূর-জাহান
চুরি হওয়া শিশুটিকে মায়ের কোলে ফিরিয়ে দিলেন কলেজ শিক্ষার্থী নূর-জাহান

চুরি হওয়া শিশুটিকে মায়ের কোলে ফিরিয়ে দিলেন কলেজ শিক্ষার্থী নূর-জাহান

ব্রাহ্মণবাড়িয়া প্রতিনিধি।।

ব্রাহ্মণবাড়িয়ার নবীনগরে আহমদ মেডিক্যাল নামের একটি প্রাইভেট ক্লিনিক থেকে চুরি হওয়া ৪১ দিনের শিশু ওবায়েদকে অবশেষে পাওয়া গেছে।

রোববার (৬ জুন) বিকেল সাড়ে ৪টার দিকে ব্রাহ্মণবাড়িয়া জেলা শহরের হালদারপাড়ার সূর্যমুখী কিন্ডারগার্টেন স্কুলের পাশ থেকে নূর-জাহান নামের এক কলেজ শিক্ষার্থী শিশুটিকে পেয়ে সদর মডেল থানায় নিয়ে আসেন।

পরে রাত সাড়ে ৯টার দিকে সদর মডেল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) এমরানুল ইসলাম শিশুটির মা সাবিনা আক্তারের কাছে হস্তান্তর করেন।

এর আগে রোববার দুপুর দেড়টার দিকে নবীনগর উপজেলার সদরের আহমদ মেডিক্যাল থেকে শিশুটি চুরি হয়।

শিশু ওবায়েদ নবীনগর পৌরসভার ৫নং ওয়ার্ডের মাঝিকাড়া এলাকার কাউসার মিয়ার ছেলে।

উদ্ধারের বিষয়টি নিশ্চিত করে সদর মডেল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) এমরানুল ইসলাম বলেন, বিকেলে শিশুটিকে জেলা শহরের হালদারপাড়ায় একটি স্কুলের পাশে পড়ে থাকতে দেখে কলেজ শিক্ষার্থী নূর-জাহান তাকে উদ্ধার করেন। শিশুটিকে উদ্ধার করে থানায় নিয়ে আসেন নূর-জাহান। পরে কনস্টেবল তানিয়াকে দিয়ে ব্রাহ্মণবাড়িয়া ২৫০ শয্যাবিশিষ্ট জেনারেল হাসপাতালে পাঠানো হয়।

নূর-জাহান জানান, লকডাউনের কারনে কলেজ বন্ধ থাকায় ব্রাহ্মণবাড়িয়া জেলা শহরে তার বড়বোন সাথী আক্তারের বাসায় বেড়াতে আসেন। আজকে বিকেলে হালদারপাড়া যাওয়ার সময় রাস্তার পাশে একটি শিশু চিতকার করতে দেখেন নূর-জাহান। পরে শিশুটিকে উদ্ধার করে সদর থানায় নিয়ে যান।

চুরি হওয়া শিশুটিকে মায়ের কোলে ফিরিয়ে দিয়ে নূর-জাহান খুবই খুশি হয়েছে৷ এমন একটি মানবিক কাজের সাথে জড়িত হয়ে সে খুব আনন্দিত।

নিখোঁজের বিষয়ে ও শিশুটি হস্তান্তর ব্যাপারে নবীনগর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আমিনুর রশীদ জানান, দুপুরে সাবিনা আক্তার শিশুটিকে কোলে নিয়ে বেসরকারি হাসপাতালটিতে চিকিৎসার জন্য আসেন। সেখানে চিকিৎসক তাকে আল্ট্রাসনোগ্রাফি করার পরামর্শ দেন। হাসপাতালে আল্ট্রসনোগ্রাফি কক্ষে ঢোকার আগে সাবিনা আক্তার তার সন্তানকে পাশে বসা এক অপরিচিত নারীর কোলে দিয়ে যান। আল্ট্রাসনোগ্রাফি কক্ষ থেকে বের হয়ে দেখেন নবজাতক শিশুসহ অপরিচিত নারী উধাও। রাতে জেলা শহর থেকে শিশুটি উদ্ধারের পর পরিবারের কাছে হস্তান্তর করা হয়েছে।

About Syed Enamul Huq

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*