ব্রেকিং নিউজ
Home » দৈনিক সকালবেলা » বিভাগীয় সংবাদ » জেলার-খবর » পিএইচডি’র সুবিধা বঞ্চিত জনগোষ্ঠীর অত্যাবশ্যকীয় স্বাস্থ্যসেবা প্রকল্প বন্ধ বরগুনায় নিন্ম আয়ের মানুষেরা র্দূভোগে
পিএইচডি’র সুবিধা বঞ্চিত জনগোষ্ঠীর অত্যাবশ্যকীয় স্বাস্থ্যসেবা প্রকল্প বন্ধ বরগুনায় নিন্ম আয়ের মানুষেরা র্দূভোগে

পিএইচডি’র সুবিধা বঞ্চিত জনগোষ্ঠীর অত্যাবশ্যকীয় স্বাস্থ্যসেবা প্রকল্প বন্ধ বরগুনায় নিন্ম আয়ের মানুষেরা র্দূভোগে

বরগুনা প্রতিনিধি: বরগুনায় সুবিধা বঞ্চিত জনগোষ্ঠীর জন্য অত্যাবশ্যকীয় স্বাস্থ্যসেবা প্রকল্পটি হঠাৎ বন্ধ হয়ে যাওয়ায় র্র্দূভোগে পড়েছে নিন্ম আয়ের মানুয়েরা। উপকূলবর্তী জনগোষ্ঠীর জন্য স্বাস্থ্য সেবা নিশ্চিত করতে বরগুনা পৌরসভায় এ প্রকল্পটি বাস্তবায়ন করছিল পার্টনার্স ইন হেলথ্ এন্ড ডেভেলপমেন্ট (পিএইচডি) নামের একটি বে-সরকারি সংস্থা। ২০১৯ সালের অক্টোবর মাসে শুরু হয়ে এ বছরের জুলাই মাসে করোনার কারণে হঠাৎ সুবিধা বঞ্চিত জনগোষ্ঠীর জন্য অত্যাবশ্যকীয় স্বাস্থ্যসেবা প্রকল্পটি বন্ধ হয়ে যায়।এ কারণে পৌরসভার নিন্ম আয়ের মানুষেরা স্বাস্থ্য সেবা থেকে বঞ্চিত হয়ে র্দূভোগে পড়েছে। পৌরসভার সুবিধা বঞ্চিত জনগোষ্ঠীর জন্য অত্যাবশ্যকীয় স্বাস্থ্যসেবা প্রকল্পটি ২০২২ সালে সেপ্টম্বর মাস পর্যন্ত চালু থাকার কথা ছিল।
ব্রিটিশ সরকারের এফসিডিও,র আর্থায়নে ও কনসার্ন ওয়ার্ল্ড ওয়াইডের নেতৃত্তে¡ এবং পার্টনার্স ইন হেলথ্ এন্ড ডেভেলপমেন্ট (পিএইচডি) বাস্তবায়নে বরগুনা পৌরসভার সুবিধা বঞ্চিত জনগোষ্ঠীর জন্য অত্যাবশ্যকীয় স্বাস্থ্যসেবা শীর্ষক এ প্রকল্পটির আওতায় স্বাস্থ্য সেবা কার্ডের মাধ্যমে প্রায় ২২ পরিবারকে স্বাস্থ্য সেবা দিতেন । এতে প্রত্যেক পরিবার প্রায় ২৬ হাজার টাকার স্বাস্থ্য সেবা সুবিধা পেতেন। জুলাই মাসে করোনার কারণে হঠাৎ এ প্রকল্পটি বন্ধ হয়ে যায়। ক্ষতিগ্রস্ত হয় পৌরসভার নিন্ম-আয়ের মানুষ।
উপকূলবর্তী সুবিধা বঞ্চিত জনগোষ্ঠীর স্বাস্থ্য সেবা সংকট কাটিয়ে উঠতে প্রয়োজন সরকারি ও বেসরকারি সংস্থার সমন্বিত প্রচেষ্টা। এই সাগর পাড়ের অত্যন্ত প্রত্যন্ত অঞ্চলের জনগোষ্ঠীর স্বাস্থ্য সুবিধা প্রাপ্তির হার বাড়াতে এই প্রকল্পটি গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা রাখছিল। কিন্তু প্রকল্পটি বন্ধ হওয়ায় নিন্ম আয়ের মানুষের কিছুটা হলেও স্বাস্থ্য সেবা বঞ্চিত হতে পারে ।
সুবিধা বঞ্চিত জনগোষ্ঠীর জন্য অত্যাবশ্যকীয় স্বাস্থ্যসেবা শীর্ষক এ প্রকল্পটির আওতায় দেশের প্রতিবন্ধী ব্যক্তিসহ সকল সুবিধা বঞ্চিত জনগোষ্ঠীর অত্যাবশ্যকীয় স্বাস্থ্যসেবা প্রাপ্তির হার এবং জরুরী স্বাস্থ্যসেবা মান কিছুটা হলেও উন্নয়নে দিকে এগুচ্ছিল। এই প্রকল্পটি বাস্তবায়িত হলে উপকূলবর্তী প্রত্যন্ত অঞ্চলের জনগোষ্ঠীর দোরগোড়ায় স্বাস্থ্যসেবা নিশ্চিত পৌঁছে যেত। এতে স্থানীয় সুবিধা বঞ্চিত জনগোষ্ঠী, বিশেষ করে মাতৃ ও শিশুমৃত্যুর হার আগের তুলনায় অনেকাংশে হ্রাস পেত।
পৌরসভাস্থ স্বাস্থ্য সেবা বঞ্চিত নিন্ম আয়ের মানুষের দাবী স্বাস্থ্যসেবা, পরিবার-পরিকল্পনা ও পুষ্টি সেবার উন্নয়নের একটি টেকসই মডেল নির্ধারণ ও বাস্তবায়ন করার ক্ষেত্রে এ প্রকল্পটি বরগুনায় বাস্তবায়ন করা একান্ত প্রয়োজন

About Syed Enamul Huq

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*